আপোষহীন দেশনেত্রী বেগম খালেদা জিয়ার ওপর চিকিৎসা সন্ত্রাস চালাচ্ছে হাসিনার অবৈধ সরকার

গণমানুষের প্রাণপ্রিয় নেত্রী তথা দেশমাতা বেগম খালেদা জিয়াকে বিনা অপরাধে ৬৮৬ দিন যাবত বন্দী করে নির্যাতন করা হচ্ছে। তিনি গুরুতর অসুস্থ হলেও সুচিকিৎসা দেয়া হচ্ছে না। অ্যামনেস্টি ইন্টারন্যাশনাল তাঁর সুচিকিৎসা ও ন্যায়বিচার নিশ্চিত করতে সরকারের প্রতি আহ্বান জানালেও তাতে কর্নপাত করছে না ক্রোধপরায়ণ ও কলহপ্রিয় প্রধানমন্ত্রী। বেগম জিয়ার ন্যায্য জামিনে বাধা দেয়া হচ্ছে। এখন তাঁর ওপর চলছে রীতিমত চিকিৎসা-সন্ত্রাস।
দেশমাতা বেগম খালেদা জিয়া কেমন আছেন? তাঁকে নিয়ে কি করা হচ্ছে? কিছুই জানতে দেয়া হচ্ছে না। আমরা আশংকায় আছি দেশনেত্রীকে নিয়ে। তাঁর অসুস্থতা পূর্বের চেয়ে ভিন্ন ও গভীর। আমরা চরম উদ্বেগ ও উৎকন্ঠায় আছি। আসলে তাঁর স্বাস্থ্য পরীক্ষা ও নিয়মিত ঔষধ সেবনে কোন কারসাজি করা হচ্ছে কি না?
সরকারপ্রধানের সরাসরি হস্তক্ষেপে পিজি (বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়) হাসপাতাল কর্তৃপক্ষের মনগড়া স্বাস্থ্য প্রতিবেদনে জামিন বন্ধ করে দেয়ার পর আমরা আশংকা করছি দেশনেত্রীকে প্রাণনাশ করার ভয়ংকার কোন নীলনক্সা বাস্তবায়ন করা হচ্ছে কি না, কারণ তাঁর ব্যক্তিগত চিকিৎসক ডাঃ শামীম ও ডাঃ মামুনকে এখন আর দেখা করতে দেয়া হয় না।
আমরা অবিলম্বে বেগম খালেদা জিয়ার ব্যক্তিগত চিকিৎসক ডাঃ শামীম ও ডাঃ মামুনকে তাঁর সাথে সাক্ষাতের সুযোগ দেয়ার আহবান জানাই এবং এই মূহুর্তে দেশনেত্রীর নিঃশর্ত মুক্তি চাই ।

Print Friendly, PDF & Email
Close Menu
×